মঙ্গলবার, ১৮ জুন ২০২৪, ০৪:০০ অপরাহ্ন

বিশেষ বিজ্ঞপ্তি
পবিত্র ঈদ-উল-আযহা  উপলক্ষে জাতীয় সাংবাদিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন বাগেরহাট জেলা কমিটির পক্ষ থেকে সবাইকে আন্তরিক অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা ঈদ মোবারক
সংবাদ শিরোনাম :
চুলকাটিতে বিশাল গরু ছাগলের হাটের শুভ উদ্বোধন  চুলকাটি বাজার রেলস্টেশনে যাত্রীদের উপচে পড়া ভিড় মোল্লাহাটে টিসিবির ৫৪০ লিটার সয়াবিন তেলসহ আটক ১ মোল্লাহাটে শিশু যত্ন কেন্দ্রের কেয়ার কিপারদের ৭ দিন ব্যাপী মৌলিক প্রশিক্ষণ উদ্বোধন বিশ্ব পরিবেশ দিবস উপলক্ষ্যে পরিবেশ বান্ধব চারা বিতরণ জাতীয় সাংবাদিক কল্যাণ ফাউন্ডেশনের বাগেরহাট জেলা-কমিটি অনুমোদন নয়ন স্মৃতি নাইট শর্ট ক্রিকেট টুর্নামেন্টে সৈয়দপুর চ্যাম্পিয়ন আত্মসমর্পণকারী দস্যুরা পেল র‌্যাবের ঈদ উপহার বাগেরহাটে দুস্থ ও অসহায়দের মধ্যে ঈদ উপহার বিতরণ করেছেন শেখ তন্ময় এমপি বুয়েটে ছাত্র রাজনীতির দাবিতে মোংলায় মানববন্ধন
নৌযান শ্রমিকদের অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতি শুরু, মোংলা বন্দরে পণ্য খালাস বন্ধের শঙ্কা

নৌযান শ্রমিকদের অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতি শুরু, মোংলা বন্দরে পণ্য খালাস বন্ধের শঙ্কা

বাগেরহাট প্রতিনিধি
নৌযান শ্রমিকদের মজুরি বৃদ্ধিসহ ১০ দফা দাবিতে শনিবার রাত ১২টা ১ মিনিট থেকে সারা দেশে শুরু হয়েছে অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতি। কর্মবিরতিতে সমর্থন দিয়ে রবিবার মোংলা বন্দরের পশুর চ্যানেলের বিভিন্ন এলাকায় কয়েকশ’ লাইটার জাহাজ নোঙর করে রেখেছেন নৌযান শ্রমিকরা। এর ফলে লাইটার সংকটে যেকোনও মুহূর্তে মোংলা বন্দরে অবস্থারত বিদেশি বাণিজ্যিক জাহাজ থেকে পণ্য খালাস বন্ধ হয়ে যেতে পারে বলে আশঙ্কা করছেন বন্দর ব্যবহারকারীরা। অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতির প্রথম দিনে রবিবার মোংলা বন্দরে খালাসকৃত কোন পন্য নৌপথে পরিবহন হয়নি। এদিকে অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতির প্রথম দিনে মোংলায় দাবী আদায়ে নৌযান শ্রমিকরা মিছিল সমাবেশ করেছে।
মোংলা বন্দর ব্যবহারকারী এইচ এম দুলাল জানান, লাইটার সংকটের কারণে জাহাজ থেকে পণ্য খালাস না করতে পারলে তাদের অনেক টাকার আর্থিক ক্ষতি হবে। দেশে খাদ্যপণ্যের মূল্য আরো বেড়ে যাবে। শিপিং এজেন্টদেরও জাহাজ ভাড়া বাড়বে। এই অবস্থায় দ্রæত আলোচনার মাধ্যমে সমস্যা সমাধানে সরকারের কাছে দাবী জানান এই বন্দর ব্যবহারকারী।
বাংলাদেশ লাইটারেজ শ্রমিক ইউনিয়নের মোংলা শাখার সহ-সভাপতি মাইনুল হোসেন মিন্টু জানান, নৌযান শ্রমিকদের মজুরি বৃদ্ধিসহ ১০ দফা দাবিতে আদায়ের লক্ষ্যে গত ১৯ নভেম্বর সারা দেশের নৌবন্দরগুলোতে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ থেকে সরকার এবং মালিকপক্ষকে আল্টিমেটাম দেয়া হয়েছিল। সরকার ও মালিকপক্ষ আমাদের দাবি বাস্তবায়ন না করায় আমরা বাধ্য হয়ে সারা দেশে একযোগে শনিবার রাত ১২টা ১ মিনিট থেকে অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতির কর্মসূচি দিয়েছি। দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতি চলবে। কর্মবিরতির প্রথম দিনে রবিবার সকালে মোংলায় মজুরি বৃদ্ধিসহ ১০ দফা দাবি আদায়ে নৌযান শ্রমিকদের পক্ষ থেকে মিছিল সমাবেশ করা করেছে।
মোংলা বন্দর কর্তৃপক্ষের হারবার মাস্টার ক্যাপ্টেন শাহীন মজিদ জানান, বর্তমানে বন্দরের জেটি ও বহি:নোঙ্গরে ১১টি বানিজ্যিক জাহাজ রয়েছে। নৌযান শ্রমিক অনির্দিষ্টকালের ধর্মঘটে প্রথম দিনে মোংলা বন্দরে বাণিজ্যিক জাহাজ থেকে পণ্য খালাসে এখনও কোনও প্রভাব পড়েনি। বন্দরে খালাসকৃত কোন পন্য নৌপথে পরিবহন হয়নি। তবে, বন্দরের স্বার্থে দ্রæত নৌযান ধর্মঘট প্রত্যাহার চান এই বন্দর কর্মকর্তা।

Print Friendly, PDF & Email

নিউজটি শেয়ার করুন আপনার সোশ্যাল মিডিয়ায়..

Leave a Reply

Your email address will not be published.

  1. © স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০২০২০২১, www.chulkati24.com

কারিগরি সহায়তায়ঃ-SB Computers